অবহেলায় শিশু মৃত্যুর অভিযোগে ইউএসটিসির ৫ চিকিৎসকের বিরুদ্ধে মামলা


sraboni প্রকাশিত: ৯:০০ পূর্বাহ্ণ ২৬ ফেব্রুয়ারি , ২০২২
অবহেলায় শিশু মৃত্যুর অভিযোগে ইউএসটিসির ৫ চিকিৎসকের বিরুদ্ধে মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক:  চট্টগ্রাম নগরের বেসরকারি ইউএসটিসি হাসপাতালের পাঁচ চিকিৎসকের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে।শুক্রবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) দিনগত রাতে নগরের খুলশী থানায় মামলাটি হয়। মারা যাওয়া শিশুর বাবা রাজীব চক্রবর্তী বাদী হয়ে মামলাটি দায়ের করেন।মামলার আসামিরা হলেন- ডা. শওকত (২৯), ডা. মেজবাহ (২৮), ডা. সাব্বির (২৮), ডা. নাহিদ (২৮) ও ডা. রিজভি (২৭)। এদের মধ্যে সাব্বির, নাহিদ এবং রিজভি ইন্টার্ন চিকিৎসক হিসেবে কর্মরত রয়েছেন।

মামলার এজাহারে ভুক্তভোগীর বাবা উল্লেখ করেন- গত ২২ ফেব্রুয়ারি বিকেলে তার ছেলে অনুরাজ হঠাৎ অসুস্থতাবোধ করে। সঙ্গে সঙ্গে তিনি স্থানীয় একজন চিকিৎসককে দেখান। ওই চিকিৎসক তার ছেলেকে দ্রুত হাসপাতালে ভর্তির পরামর্শ দেন। এরপর শিশুকে নিয়ে যাওয়া হয় চট্টগ্রামের মা ও শিশু হাসপাতালে। কিন্তু সেখানে কোনো বেড খালি ছিল না। ওইদিন রাত সাড়ে ১০টার দিকে শিশুকে খুলশী থানার ইউএসটিসি হাসপাতালে ভর্তি করেন।

সেখানে প্রয়োজনীয় পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষে তাকে শিশুদের নিবিড় পরিচর্যা ইউনিটে (এনআইসিইউ) রাখা হয়। এনআইসিইউতে দুদিন চিকিৎসাধীন থাকার পর ওই শিশু সুস্থ হয়ে ওঠে। ২৪ ফেব্রুয়ারি কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে সাধারণ বেডে নিয়ে আসেন। কিন্তু ওইদিন রাতে আবার শিশুর শ্বাসকষ্ট বেড়ে যায়। ভুক্তভোগী শিশুর মা বিষয়টি সংশ্লিষ্ট চিকিৎসক এবং নার্সকে অবহিত করেন। কিন্তু চিকিৎসক তাদের কথায় কোনো সাড়া না দিয়ে গল্পগুজব করতে থাকেন।

এদিকে শিশুর অবস্থা আরও আশঙ্কাজনক হয়ে পড়ে। তার বাবা অনুরোধ করতে থাকেন শিশুকে আবার এনআইসিইউতে ভর্তির জন্য। একপর্যায়ে চিকিৎসকরা ক্ষিপ্ত হয়ে উল্টো রোগীর স্বজনকে মারধর করেন। মারধরের পর শিশুর মৃত্যু হয়েছে জানিয়ে চিকিৎসকরা দ্রুত সটকে পড়ে। এ ঘটনার পর স্বজনরা বিষয়টি জাতীয় জরুরি সেবা সংস্থা ৯৯৯- এ ফোন দেন। ঘটনাস্থলে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে।

খুলশী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সন্তোষ কুমার  বলেন, চিকিৎসার অবহেলায় শিশুর মৃত্যু এবং তার স্বজনদের মারধরের অভিযোগে মামলা হয়েছে। এতে পাঁচ চিকিৎসককে আসামি করা হয়। এখনো কেউ গ্রেফতার হয়নি। ঘটনাটি তদন্ত করা হচ্ছে।