সংবিধানে ৭ মার্চের ভাষণে শতাধিক ভুল, তদন্ত প্রতিবেদন হাইকোর্টে


rupali প্রকাশিত: ২:২৬ অপরাহ্ণ ১৬ জুন , ২০২২
সংবিধানে ৭ মার্চের ভাষণে শতাধিক ভুল, তদন্ত প্রতিবেদন হাইকোর্টে

নিজস্ব প্রতিবেদক: সংবিধানে অন্তর্ভুক্ত জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণে ১১৭টি স্থানে ভুল পেয়েছে হাইকোর্টের নির্দেশে গঠিত উচ্চ পর্যায়ের কমিটি।

আইন মন্ত্রণালয় থেকে বৃহস্পতিবার (১৬ জুন) বিচারপতি মুজিবুর রহমান ও বিচারপতি খিজির হায়াতের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চে এ সংক্রান্ত একটি প্রতিবেদন দাখিল করা হয়েছে।

রিটকারী আইনজীবী অ্যাডভোকেট সুবীর নন্দী দাস বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ মার্চের ভাষণ সংবিধানের পঞ্চম তফসিলে ‘অসম্পূর্ণ’ ও ‘ভুলভাবে’ অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে কিনা তা খতিয়ে দেখতে ২০২০ সালের ১০ মার্চ উচ্চ পর্যায়ের একটি কমিটি করতে নির্দেশ দেয় হাইকোর্ট।

১৯৭১ সালের ৭ মার্চ রেসকোর্স ময়দানে বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক সেই ভাষণের সময় সমাবেশে উপস্থিত থেকে যারা ভাষণটি সরাসরি শুনেছেন, তাদের কাউকে অন্তর্ভুক্ত করে কমিটি গঠন করতে বলা হয়।

এ সংক্রান্ত এক রিটের প্রাথমিক শুনানি নিয়ে বিচারপতি তারিক উল হাকিম ও বিচারপতি মো. ইকবাল কবিরের হাইকোর্ট বেঞ্চ রুলসহ ওই আদেশ দিয়েছিল।

প্রতিবেদন দাখিলের পর রিটকারীর আইনজীবী আব্দুল আলীম মিঞা জুয়েল বলেন, সংবিধানে জাতির জনকের ৭ মার্চের ভাষণে কমিটি ১১৭টি ভুল পেয়েছে।

স্বাধীনতার প্রাক্কালে ১৯৭১ সালের ৭ মার্চ রেসকোর্স ময়দানে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের দেওয়া ওই ভাষণ সংবিধান ও পাঠ্যপুস্তকে ‘ভুলভাবে অন্তর্ভুক্ত করার’ বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে রিট আবেদনটি করেন রাজবাড়ীর কাশেদ আলী।